চিনির বিকল্প যা খাবেন

সংবাদদাতা
সংবাদদাতা
প্রকাশিত: ১২:৩৫, মার্চ ২১ ২0১৯ |
Print
ফাইল ছবি

অনলাইন ডেস্ক,জনতার কন্ঠ:

আজকাল প্রায় সব চিকিৎসক খাদ্যতালিকা থেকে চিনি বাদ দেওয়ার পরামর্শ দিয়ে থাকেন । অতিরিক্ত চিনি বা চিনিজাতীয় খাবার খেলে হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপ, মস্তিষ্কের রোগ, স্থূলতা ইত্যাদির আশঙ্কাও বেড়ে যায়।  বর্তমানে বাজারে চিনির বিকল্প অনেক ধরনের ট্যবলেট বা বিকল্প উপাদানও পাওয়া যায়। তবে চিনির বিকল্প হিসেবে রাসায়নিক উপাদান দিয়ে তৈরি কৃত্রিম মিষ্টি ট্যাবলেটও পুরোপুরি স্বাস্থ্যসম্মত নয়।

তা হলে উপায়? চিনি ছাড়া পায়েস বা চিনি ছাড়া মুড়কি কি বানানো যায়? কিংবা প্রতিদিনকার কিছু কিছু রান্নাতেও চিনির ব্যবহার থাকেই। কিন্তু চিনি বন্ধ হলে কী করবেন? চিনির বদলে কী মেশাবেন রান্নায়?

মধু
চিকিৎসকদের মতে, চিনির বদলে খাঁটি মধু মেশান রান্নায়। স্বাদেও মন ভোলাবে, চিনির চেয়ে উপকারও বেশি। চিনির বিকল্প হিসেবে সবচেয়ে স্বাস্থ্যকর ন্যাচারাল সুইটেনার মধু। ১ টেবল চামচ মধুতে ক্যালোরির পরিমাণ ৬৪।

নারকেলের চিনি
স্বাস্থ্যকর ও একেবারেই ডায়াবেটিক নয় বলে এই উপাদানের চাহিদা তুঙ্গে। নারকেল থেকে বানানো এই চিনিও ব্যবহার করতে পারেন রান্নায়। কোকোনাট সুগারে ক্যালোরি অনেক কম থাকে। ১ টেবল চামচ কোকোনাট সুগারে ক্যালোরির পরিমাণ ৪৫।

গুড়
এটি চিনির চেয়ে বেশি মিষ্টি। তবু এর ক্যালোরি অনেক কম। হলেও গুড়ে ক্যালোরির পরিমাণ অনেক কম। ১ টেবল চামচ গুড়ে থাকে মাত্র ৪৭ ক্যালোরি। গুড়ের বদলে গুড়ের বাতাসাও ব্যবহার করতে পারেন রান্নায়।

ম্যাপল সিরাপ
রান্নায় ম্যাপল সিরাপ দিয়ে অনেক বড় বড় রেস্তরাঁতেও রান্না হয়। খাবারকে মিষ্টি যেমন করে, তেমনই এটি শরীরের ক্ষতি করে না। এক ক্যালোরিও অনেক কম।

এমআর/এল

বিনোদন, লাইফস্টাইল, তথ্যপ্রযুক্তি, ভ্রমণ, তারুণ্য, ক্যাম্পাস নিয়ে লিখতে পারেন আপনিও - janoterkontho@gmail.com or মতিঝিল অফিসঃ খান ম্যানশন, ১০৭ মতিঝিল, ঢাকা-১০০০

আপনার মতামত লিখুন :